করোনায় খাদ্যাভ্যাস ও করনীয়

বর্তমানে আমাদের বিশ্ব এ করোনা ভাইরাসের প্রকোপ বেড়েই চলেছে। বাংলাদেশও এর বাইরে নয়। এখন  পর্‍্যন্ত বাংলাদেশে ১২৩ জন আক্রান্ত । করোনা ভাইরাস পুরো বিশ্বের কাছে একটি নতুন এবং অজানা ভাইরাস তাই এখন পর্‍্যন্ত কোন ভ্যাক্সিন আবিস্কার হয়নি।এজন্য আমাদের উচিত আমাদের শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোর দিক নজর দেয়া। যার রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বেশী সে এ ভাইরাস এর বিরুদ্ধে তত বেশি রুখতে পারবে। আমাদের খাদ্যাভ্যাস এ অল্প পরিবর্তন আনলেই আমরা আমাদের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে পারবো। এক্ষেত্রে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন থাকা ও খাদ্যাভাসে কিছু খাবার যোগ করে নিজেকে করোনা ভাইরাস থেকে মুক্ত রাখা সম্ভব।


📢 Promoted post: বাংলায় আর্টিকেল লেখালেখি করে ইনকাম করতে চান?

আমাদের শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে করনীয়ঃ

👉Read more: ফুল নিয়ে ক্যাপশন (সাদা ফুল, কৃষ্ণচূড়া ফুল, সূর্যমুখী, সরষে ফুল, রঙ্গন ফুল) উক্তি, স্ট্যাটাস

১.ভিটামিন আমাদের শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায় । সবুজ শাকসবজিতে থাকা ভিটামিন এ, ভিটামিন সি, ভিটামিন ই, খনিজ ও ফাইবার শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায় যা আমাদের করোনা ভাইরাস এর বিরুদ্ধে লড়তে সহায়তা করবে।

২. বিভিন্ন ধরনের টক জাতীয় ফল যেমন লেবু, কমলা,বাতাবিলেবু,মাল্টা এই সব বেশি করে খাওয়া উচিত। কারণ এসব ফলে থাকা ভিটামিন সি সর্দি, কাশি, জ্বরের জন্য খুবই উপকারী। তাছাড়া শরীরের উপকারী শ্বেত রক্তকণিকা তৈরি করতেও সাহায্য করে ভিটামিন সি। এছাড়া যে কোনও সংক্রমণের বিরুদ্ধে লড়তে সাহায্য করে ভিটামিন সি। এবং করোনা ভাইরাস এর বিরুদ্ধে লড়তে সহায়তা করবে।

grathor-ads

৩. রসুনে থাকে প্রচুর অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট  যা ঠান্ডা লাগা, সংক্রমণ দূর করতে সাহায্য করে।

৪. টক দই রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে কার্যকর ভূমিকা রাখে। করোনা ভাইরাস এর বিরুদ্ধে লড়তে সহায়তা করবে।

📢 Promoted Link: Unlimited Internet Package Teletalk 2022 3G, 4G

৫. অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল ও অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট সমৃদ্ধ মধুর উপকারিতার শেষ নেই। প্রতিদিন এক চা চামচ মধু খেলে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়বে।

৬ .তাছাড়া দৈনিক ৮ঘন্টা ঘুম আমাদের শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে সহায়তা করবে।

৭. প্রতিদিন প্রচুর পানি পান করতে হবে যা আমরা খাবার পানি একং চা এর মাধ্যমে পেতে পারি।

৮.আমাদের উচিত নিয়মিত ৩০ মিনিট  শারীরিক ব্যায়াম করা যা আমাদের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে সহায়তা করবে।

৯.আমাদের প্রতিদিন পরিস্কার থাকার বেপার এ সজাগ থাকতে হবে কারন পরিচ্ছন্নতা পারে আমাদেরকে ভাইরাস সংক্রমণ থেকে রুখতে। বাইরে থেকে ঘরে ঢুকলে,হাত দিয়ে টাকা ধরলে নিয়মিত ২০ সেকেন্ড ধরে সাবান পানি দিয়ে হাত ধুতে হবে। নিয়মিত হ্যান্ড স্যানিটাইজার ব্যাবহার  করতে হবে।তাছড়া বাজার থেকে কোন ফলমুল বা শাকসবজি কিনে আনলে তা অবশ্যই ভাল ভাবে  ধুতে হবে এবং তা গরম পানি দিয়ে ভালভাবে শিদ্ধ করতে হবে।এতে করে ভাইরাস সংক্রমণ হবে না।

আমাদের সকলের সম্মিলিত প্রচেষ্টাই পারে আমাদেরকে এই মরণঘাতি  করোনা ভাইরাসকে

প্রতিরোধ করতে। আমাদের সকলের উচিত সকলের বাসায় থাকা এবং অপ্রয়োজনে বাইরে না যাওয়া।

Related Posts