ফোন দিয়ে ইউটিউব ভিডিও এসইও ১০০%।

Search engine optimisation.

SEO.

আমরা যারা অনলাইনে খুটিনাটি বিষয় এর উপর পারদর্শী,একই সাথে তারা এশীয় সম্পর্কে কিছু না কিছু অবগত।

 

 

 

 

অনলাইন জগতে এসইও শব্দটি এমনই একটি জায়গা দখল করে নিয়েছে যেটা কখনোই ভুলে যাওয়ার কাম্য নয়।

 

#SEO: সবার আগে জানা দরকার আসলেই এটা মূলত কি?

#এসইও কি কাজে ব্যবহৃত হয়?

#এসইও কেন করা হয়?

#এবং এসইও করে কি মনে পাওয়ার জন্য করা যায়?

 

 

 

 

 

#যখনই এশীয় সম্পর্কে কারো জ্ঞান থাকেনা তার কাছে এই প্রশ্নগুলো ধোঁয়াশার মত মনে হয়। তাহলে চলুন আজকে আমরা এসইও সম্পর্কে খুঁটিনাটি বিষয় জেনে নেই।

 

 

SEO: Search engine optimisation এসইও এর ইংলিশ হল এটা।যখনই এর বিস্তারিত আলোচনা করা হয় তখন সর্বপ্রথম যে বিষয়টি সবার আগে উপস্থাপন করা জরুরি সেটি হল,

কোন কিছুতে যখন আমরা খুঁজি, আমরা যখন খোঁজার জন্য একটি নাম ব্যবহার করে ডাক দেই। যেই জিনিসটি সর্বপ্রথম আমাদের চোখের সামনে চলে আসে মূলত সেটাই SEO.

 

 

 

এখন প্রাক্টিক্যাল বুঝতে চেষ্টা করি:

কোন ভিডিও কি সার্চ করি প্রয়োজন অনুযায়ী, উদাহরণস্বরূপ ধরা যাক আমরা একটি ইউটিউব এসইও সংক্রান্ত ভিডিও খুজতেছি। এবং আমরা ইউটিউবে গিয়ে ইউটিউবে সার্চ বারে লিখলাম এসইও। এটা লেখার পর যখন আমরা ইন্টার করব। তখন আমাদের সামনে অনেকগুলো ভিডিও চলে আসবে। এবং আমরা সেখান থেকে যে কোন একটি ভিডিও ক্লিক করে আমাদের এসইও টিউটোরিয়াল দেখে নিব। এখন দেখুন, যখন এসইও লিখে সার্চ করলে তখন কিন্তু হাজার হাজার ভিডিও চলে আসবে আপনার সামনে। আপনি মূলত হাজার হাজার ভিডিও গুলো না খুঁজে সর্বপ্রথম যে ভিডিওটি আসবে সেটিতে ক্লিক করবেন। এর থেকে এটাই প্রমাণিত হয় যে যে ভিডিওটা বা যে টিউটোরিয়ালটা সবার আগে আপনাকে সাজেস্ট করা হয়।এটার একটি কারণ রয়েছে ওই ভিডিওটি আপনার সামনে সর্বপ্রথম আসার জন্য। যে উপায় টি ব্যবহার করা হয়েছে সেই উপায়টি হলো এসইও বা সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন।

 

 

এই ভিডিওটা যে ব্যক্তি আপলোড করেছে ওই ব্যক্তি ওই ভিডিওটার উপর যথেষ্ট পরিমাণে রিসার্চ করে এবং, ওই ভিডিওটার যাবতীয় ইনফরমেশন গুলো কে সঠিকভাবে ইউটিউব লগারিদম এর কাছে হস্তান্তর করতে পেরেছে।

 

 

সকল ভিডিও থেকে হেল্প ফুল এবং গুরুত্বপূর্ণ।এবং সেটা কিন্তু মুখে বলে দিলে হবে না সেটা কার্যক্রমের মাধ্যমে ইউটিউব লগারিদম এর কাছে নোটিশ পাঠাতে হবে।

 

 

এবং সেই নোটিশ পাঠানোর পদ্ধতি এসইও।

 

এইবার অবশ্য আমরা বুঝতে পেরেছি এসি ওটা কি। এবং আমরা এটাও বুঝতে পেরেছি এসি ওটা করা হয় কেন।

 

 

আমরা এখন বুঝব এসি ওটা করে আমাদের কি লাভ হবে।

 

আমরা যখন ইউটিউবে কোন ভিডিও আপলোড করি তখন অবশ্যই আমাদের একটি লক্ষ্য থাকে। যেহেতু আমরা জানি ইউটিউব থেকে ইনকাম করা পসিবল। আর সেজন্যই আমরা ইউটিউবে এই ভিডিওটি আপলোড করলাম। এবং সঠিক পরিমাণে এসইও করলাম।এবং ইউটিউব লগারিদম এর কাছে নোটিশ পাঠালাম যে এই ভিডিওটি সকল ভিডিও থেকে সেরা।ইউটিউব লগারিদম আমাদের ভিডিওটি সবার আগে মানুষদের কাছে পৌঁছে দিল।

 

 

 

যেহেতু ইউটিউব লগারিদম আমাদের ভিডিওটি সবার আগে দেখালো।এবং মানুষের সার্চ করার সাথে সাথে আমাদের ভিডিওটি সর্বপ্রথম আসলো। এবং তারা আমাদের ভিডিওটি দেখা শুরু করলো। ভিউয়ার্স দের এই ভিডিও দেখার মাধ্যমে আমরা ইউটিউব কর্তৃপক্ষ থেকে একটি ইনকাম করতে পারবো।

 

 

 

সর্বোপরি এটাই বলা যায় যে আমি আপনাদেরকে বুঝাতে পেরেছি যে মূলত এসিও টা কি?

কেন করা হয়?

করলে লাভ হয় কি?

এ প্রশ্নগুলোর উত্তর অবশ্যই আপনি পেয়ে গেছেন। কিন্তু এখন যেটি সর্বপ্রধান কথা সেটি হল কিভাবে করব

এজন্য আমি আপনাকে এই লিঙ্কটি দিয়েছি সেই লিঙ্ক এর মাধ্যমে আপনি এই ভিডিওটি মনোযোগ সহকারে দেখে, আপনার সেই প্রশ্নের উত্তরটি পেয়ে যেতে পারেন অবশ্যই।

তো ভিডিওটি মনোযোগ সহকারে দেখুন অবশ্যই আপনি এসইও সংক্রান্ত সকল বিষয় জানতে পারবেন।

 

 

Related Posts

1 Comment

মন্তব্য করুন