Connect with us
★ Grathor.com এ আপনিও ✍ লেখালেখি করে আয় করুন★Click Here★

ইন্টারনেট

এই ওয়েবসাইটগুলো মানুষের দৈনন্দিন জীবনের সঙ্গি পর্ব-99

miraz raj

Published

on

পৃথিবীর সবথেকে জনপ্রিয় ওয়েবসাইট এর ভিতরে কিছু কিছু ওয়েবসাইট যেগুলোতে মানুষ দিনের মধ্যে যদি দুচারবার না ভিউ করে তাহলে তাদের দ্বীনকে পরিপূর্ণ হয় না।

হ্যাঁ বন্ধুরা পৃথিবীতে এমনই কিছু কিছু ওয়েবসাইট আছে যেগুলোতে মানুষ যদি প্রতিদিন ভুল না করে তাহলে তাদের জীবনটা আসলে সার্থক হয়ে উঠতে পারে না।

পৃথিবীর এমন কোন সাজেশন, এমন কোনো সলিউশন, এমন কোন তথ্য, এমন কোনো জিজ্ঞাসা বা এমন কোনো প্রশ্ন, নেই যা পৃথিবীর মানুষের প্রয়োজনে আসে দৈনন্দিন।

পৃথিবীর সবথেকে জনপ্রিয় ওয়েবসাইট হল গুগোল। আপনি গুগলকে যা জিজ্ঞাসা করবেন সাথে সাথে আপনাকে সেই উত্তর দিয়ে দিবে সে। আপনি গুগলকে যদি জিজ্ঞাসা করেন আপনার বাড়িটা এখন কোন পাশে আছে।গুগল আপনাকে ম্যাপ আকারে দেখিয়ে দিবে আপনার বাড়িটা এই পাসে এই জায়গায় এবং এই পজিশনে রয়েছে। আপনি যদি গুগোল কে জিজ্ঞাসা করেন রাতে খাবার পর কি করতে হয়। গুগল আপনাকে সঠিক উত্তর দিবে। আপনি যদি গুগলকে প্রশ্ন করেন সকালবেলা ঘুম থেকে উঠে সর্বপ্রথম কাজ কি একটি মানুষের সুস্থ থাকার জন্য। গুগল আপনাকে সঠিক উত্তরটা দিবে যেটি একজন বিশেষজ্ঞ এমবিবিএস ডাক্তার আপনাকে দিয়ে থাকে।

পৃথিবী এতটা সহজলভ্য হয়ে গেছে কোন শিক্ষা গ্রহণ করার জন্য প্রাতিষ্ঠানিক কোনো প্রতিষ্ঠানে ভর্তি হয় সে শিক্ষা গ্রহণ করতে হয় না। পৃথিবীর অন্য একটি জনপ্রিয় ওয়েবসাইট জেটিতে মানুষ দিনে যেও না করলে মানুষের জীবনটা আসলে সঠিক ভাবে চলে না। ইউটিউব এর নাম আমরা কিবে শুনি নাই।পৃথিবীর সবথেকে স্বনামধন্য এবং শ্রেষ্ঠ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বা বিশ্ববিদ্যালয়, অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়।আপনার-আমার হয়তোবা সে সামর্থ্য নেই যে পৃথিবীর শ্রেষ্ঠ বিশ্ববিদ্যালয় পড়ার মতো শক্তি বা সামর্থ্য কিছুই নেই।কিন্তু আপনি এই ইউটিউব ওয়েবসাইট ব্যবহার করে খুব সহজেই অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের টিচারদের লেকচার দেখতে পারবেন এবং আপনি ডাউনলোড করে আপনার নিজের এন্ড্রয়েড ফোনে রাখতে পারবেন এবং সবসময় সেটা রিভাইজ করতে পারবেন।

পৃথিবীতে যখনই সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং সিস্টেম চালু হয় পৃথিবীটা কেমন যেন একটি হাতের মধ্যে চলে আসে। পৃথিবীর যেকোন প্রান্ত থেকে আপনাকে সেকেন্ডের মধ্যে খবরা খবর বাত্রা ইত্যাদি পৌঁছে দিতে পারে নিমিষেই। পৃথিবীর উল্লিখিত ওয়েবসাইটের মধ্যে একটি জনপ্রিয় ওয়েবসাইট ফেসবুক। ফেসবুক ব্যবহার করে না এমন লোক পৃথিবীতে খুঁজে পাওয়া প্রায় হিমশিম খেতে হবে। একটা সময় ছিল যখন চিঠি দরখাস্ত লিখে এক মাস ওয়েট করার পর সেই সিঁথির সিঁদুর আজ তো সেটাও সঠিক হয়তো ভাববে ঠিক।

কিন্তু আপনি এখন সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং সিস্টেম ব্যবহার করে কয়েক সেকেন্ড সেম মাধ্যমে পৃথিবীর যে কোন প্রান্ত থেকে এসএমএস এমএমএস ভিডিও কলিং সিস্টেম অডিও কলিং সিস্টেম এবং ভিডিও সেন্ড ইত্যাদি মাধ্যম ব্যবহার করে একজনের সাথে আরেকজনের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক গড়ে তোলে।

এইগুলো সম্ভব হয়েছে পৃথিবীর কিছু কিছু সৎ ব্যক্তিদের জন্য,যারা তাদের কঠিন মেধাকে সঠিক পথে এবং সঠিক সময়ে পৃথিবীর মানুষের কল্যাণের জন্য বিভিন্ন করে দিয়েছে এবং পৃথিবীর মানুষের কল্যাণের জন্য প্রতিনিয়ত কিছু ভেবে কিছু আবিষ্কার করার চেষ্টা করেছি। তারাই আজকে পৃথিবীর বুকে সকল মানুষের হৃদয়ের স্পন্দনে একটি স্মরণীয় নাম হয়ে রয়েছে। এবং এই ব্যক্তিদের নাম গুলো কখনো পৃথিবীর মানুষ মানুষের হৃদয়ের স্পন্দন থেকে মুছে যাবে না।

Advertisement
11 Comments

11 Comments

  1. MD SALIM HOSSAIN

    MD SALIM HOSSAIN

    July 19, 2020 at 12:07 pm

    nice

  2. Mojammal Haque

    Mojammal Haque

    July 19, 2020 at 12:59 pm

    Hmmm

  3. Maria Hasin Mim

    Maria Hasin Mim

    July 19, 2020 at 1:29 pm

    Accha

  4. Mainul islam Robin

    Mainul islam Robin

    July 19, 2020 at 4:24 pm

    Like

  5. Md Golam Mostàfa

    Md Golam Mostàfa

    July 19, 2020 at 5:21 pm

    ধন্যবাদ ভাইজান।

  6. Trishan Chakraborty

    Trishan Chakraborty

    July 22, 2020 at 1:05 pm

    hmm

  7. Utsa Kumer

    Utsa Kumer

    July 25, 2020 at 4:01 pm

    gd

  8. Shehab Hossain

    Shehab Hossain

    July 26, 2020 at 12:21 pm

    Well

  9. Naim Uddin

    Naim Uddin

    July 28, 2020 at 12:09 pm

    facebook er website o ache , but eta muloto ekta app

  10. Sayem Ahmed

    Sayem Ahmed

    August 1, 2020 at 12:57 pm

    Good One

You must be logged in to post a comment Login

Leave a Reply

ইন্টারনেট

রবি সিমের ১ জিবি ইন্টারনেট অফার!

Md Ahasan Habib

Published

on

আসসালামুয়ালাইকুম বন্ধুরা,কেমন আছেন সবাই? সবাই ভালো আছেন তো? বন্ধুরা আপনারা ভালো থাকলেই আমরা আপনাদের জন্য নতুন নতুন পোস্ট লিখে আনতে পারবো। আপনারা কি লাইকি এপ্লিকেশন ব্যবহার করেন। যদি করা লাইকি এপ্লিকেশন ব্যবহার করে থাকেন তাহলে এই পোষ্ট টি আপনার জন্য কারণ রবি সিম সকল লাইকি ব্যবহারকারীদের জন্য দারূণ একটি অফার নিয়ে এসেছ। আশা করি এই অফার টি আপনাদের সবার কাছে অনেকে অনেক ভালো লাগবে। তো আর বেশি কথা না বলে আজকের পোষ্ট টি লেখা শুরু করা যাক।

 

 

 

 

 

 

লাইকি হচ্ছে শর্ট ফানি ভিডিও বানানোর একটি প্ল্যাটফর্ম। এর জন্য কিছু মেগাবাইট এর প্রয়োজন। বর্তমান সময়ে মেগাবাইট এর যে দাম তা সবার পক্ষে ক্রয় করা সম্ভব হয় না। তাই রবি সিম কোম্পনী সঙ্গে সকল লাইকি এপ্লিকেশন ব্যবহার কারীদের জন্য। রবি সিমের এই অফার টি বিস্তারিত জানতে হলে এই পোষ্ট টি একবার পড়ুন।

 

 

 

বন্ধুরা আমাদের জানতে হবে রবি সিমের এই অফার সম্পর্কে। অফার টি হলোঃ- রবি সিমে ৪৯ টাকায় পাচ্ছেন ১ জিবি ইন্টারনেট যার মেয়াদ থাকবে ৩০ দিন বা একমাস। এই অফার টি র দাম অনেক আমার কাছে মনে হচ্ছে। এই অফার টি মেয়াদ আমার কাছে ভালো লেগেছে কিন্তু ৪৯ টাকায় ১ জিবি এটা আমার ভালো লাগে নি। কারণ রবি সিমে এমন অনেক অফার আছে যা কম মুল্য অনেক জিবি পাওয়া যায়।

 

 

 

তো যাইহোক এখন আমাদের জানতে হবে এই অফার টি আপনাদের রবি সিমে কিভাবে নিবেন সে-টা এবার বলব।

 

অফার টি শুধু লাইকি এপ্লিকেশন এর জন্য এই অফার দিয়ে শুধুমাত্র লাইকি এর ভিডিও দেখতে পারবেন। অফার টি নিতে হলে প্রথমে আপনি আপনার রবি নাম্বারে ৪৯ টাকা মোবাইল রিচাজ অথবা ফ্ল্যক্সিলোড করবেন। আপনি চাইলে বিকাশ এপ্লিকেশন দিয়ে মোবাইল রিচাজ করে অফার টি নিতে পারবেন। আপনার মোবাইল রিচাজ সম্পন্ন হলে আপনার মোবাইলে একটি ম্যাসেজ আসবে সেখানে আপনার এই অফার টি আসতে দেখতে পারবেন।

 

 

 

 

রবি সিমের এই অফার টি দিয়ে শুধুমাত্র লাইকি এবং বিভিন্ন ইন্টারনেট সার্ভিস ব্যবহার করতে পারবেন। এই অফার টি অনেক ভালো যাদের কাছে অফার টি ভালো লাগবে তারা নিতে ভুল করবেন না। কারণ রবি সিম খুব কম ই এই ধরনের অফার গ্রাহকদের দিয়ে থাকে।

 

 

 

এই ছিল লাইকি এপ্লিকেশন এর রবি অফার। আশা করি এই অফার টি আপনাদের সবার কাছে ভালো লেগেছে। আপনি আপনার বন্ধুদের কাছে এই পোষ্ট টি শেয়ার করে দিতে পারেন যাতে এই অফার সম্পর্কে তারাও জানতে পারে।

ধন্যবাদ আপনাদের সবাইকে সবাই ভালো থাকবেন।

Continue Reading

ইন্টারনেট

জিপি পয়েন্ট দেখার নিয়ম

Maria Hasin Mim

Published

on

আসসালামু আলাইকুম। কেমন আছেন সবাই?আশা করি সকলে ভালো আছেন এবং সুস্থ আছেন।সকলেই স্বাস্থ্যবিধি নেমে নিজেদের কাজ পরিচালনা করবেন। এতে আপনি যেমন সুস্থ থাকবেন সেই সাথে আপনার পরিবার সুস্থ থাকবে। জিপি পয়েন্ট দেখার নিয়ম

নিরবিচ্ছিন্ন নেটওয়ার্ক এর চালিকায় যে নামটি সবার আগে আসে তা হলো জিপি অর্থাৎ গ্রামীণফোন।মোবাইল অপারেটর অন্যান্য কোম্পানিগুলোর মধ্যে গ্রামীনফোন এর অবস্থান সবার উপরে রয়েছে।গ্রাহক সংখ্যার দিক থেকে অন্যান্য মোবাইল অপারেটর কোম্পানিগুলো থেকে জিপির অবস্থান সবার উপরে।আপনি ভ্রমন করতে গেলে এমন এমন জায়গায় জাওয়া হতে পারে যেখানে নেটওয়ার্ক পাবার সম্ভাবনা অনেকটা ক্ষীণ থাকে কিন্তু সেই ক্ষেত্রে যেখানে এই সমস্যা পড়বেন সেইখানে হাজির গ্রামীনফোন। কারণ বাংলাদেশের বিস্তীর্ন অঞ্চলগুলোতে কোথাও কোন নেটওয়ার্ক পাওয়া যাক না যাক গ্রামীণফোন এর নেটওয়ার্ক পাওয়া যাবেই।সেই জন্যই গ্রাহক সেবার দিক থেকে গ্রামীণফোনের অবস্থান শীর্ষে।
গ্রাহকদের জন্য নানান অফার এবং নানান ধরণের সার্ভিস নিয়ে হাজির হয় গ্রামীণফোন।মাই জিপি অফার তারমধ্যে একটি। মাই জিপি অফার গ্রামীনফোন এর একটি অনলাইন এপ্লিকেশন। এই এপ্লিকেশনের মাধ্যমে আপনি মোবাইল রিচার্জ করলে পয়েন্টের মাধ্যমে বোনাস পেতে পারেন। আবার শুধু তাই নয় সেই পয়েন্টস থেকেও আবার আপনি মাই জিপি এপ থেকে বিভিন্ন প্যাক কিনতে পারবেন।

এখন আসি আপনাদের মনে প্রশ্ন আসতেই পারে কিভাবে আপনি মাই জিপি এপের পয়েন্টস পাবেন এবং সেই সাথে সেই পয়েন্টস আপনি ব্যবহার কর‍তে পারবেন। সেই জন্য আপনার সবার আগে মাই জিপি এপটি ডাউনলোড করতে হবে।নিচে আমি মাই জিপি এপের ডাউনলোড লিংক দিয়ে দিচ্ছি।

https://play.google.com/store/apps/details?id=com.portonics.mygp

এই লিংকে গিয়ে আপনি ডাউনলোড করে নিবেন মাই জিপি এপ।পরবর্তীতে এপটি ওপেন হবার পর আপনাকে আপনার গ্রামীণফোন নাম্বার দিয়ে সেই এপে যদি আগে থেকে একাউন্ট না থাকে তাহলে সাইনআপ আর যদি আগে একাউন্ট থেকে থাকে তাহলে সাইনইন করতে হবে।সাইনইন এবং সাইনআপ করার পর সেই এপের মাধ্যমে আপনাকে মিনিট এবং ইন্টারনেট প্যাক রিচার্জ করতে হবে।আপনি রিচার্জ করলেই পয়েন্টস পেতে পারেন।তবে মাই জিপি এপে পয়ন্টস পাবার পর অন্তত ৩০ দিন যদি ভিজিট না করেন তাহলে আপনার মাই জিপি পয়েন্টস আর নিতে পারবেন না। অন্যদিকে যদি প্রায় ৩ মাস ব্যবহার না করে থাকেন থাহলে আপনি আপনার পয়েন্ট সমূহ স্থগিত করে নেওয়া হতে পারে।কেটে নেওয়া হতে পারে।মনে রাখতে হবে সব রিচার্জে আপনি পয়েন্ট অর্জন করতে পারবেন না। শুধুমাত্র নির্দিষ্ট কিছু রিচার্জে আপনি এই পয়েন্ট অর্জন করতে পারবেন।

আপনি নির্দিষ্ট এমাউন্ট মাই জিপি এপের rendom points এ রিচার্জ করার পর আপনি একটি ফিরতি ম্যাসেজ পাবেন। রিচার্জ কনফার্ম হয়ে গেলে ব্যালেন্স আসার সাথে সাথে আপনার মাই জিপি
” congratulations,you have earn 500 points”
এমন লিখা আসবে। এভাবেই আপনি পয়েন্ট পাওয়া নিশ্চিত হবেন।সেই সাথে আপনি আপনার হোম পেইজে গিয়ে জিপি এপে আপনার সর্বমোট পয়েন্ট চেক করে আসতে পারেন।

আশা করি আজকের পোস্টটির মাধ্যমে জিপি গ্রাহকদের খানিকটা উপকার হতে পারে। ধন্যবাদ সবাইকে।
ঘরে থাকুন
সুস্থ থাকুন

Continue Reading

ইন্টারনেট

ইন্টারনেট ও ফেসবুক। ফেসবুকে আসক্তি, ফেসবুকে অর্থনীতি, ফেসবুকেই উন্নতি।

Mojammal Haque

Published

on

বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহীম

আসসালামু আলাইকুম ওয়ারাহমাতুল্লাহ

একটা কথা আমরা প্রায়ই বলে থাকি যে ফেসবুক আমাদের সময়টাকে তিলে তিলে নষ্ট করছে। ফেসবুক মানেই এটি একটি কুকর্মের স্থান। ফেসবুক মানেই হলো ছেলেমেয়েরা বিপথে চলে গেলো। কথাগুলো কিন্তু একেবারেই মিথ্যা নয়। এরকম ঘটনা ফেসবুকে অহরহ ঘটছে। তরুন বয়সী ছেলেমেয়েরা তাদের মূল্যবান পড়াশোনা বাদ দিয়ে ফেসবুকেই বেশি সময় কাটাচ্ছে। কিন্তু এ ফেসবুকের মাধ্যমে অনেক ভালো কিছএও হচ্ছে। অপরাধী ধরা, ব্লাড ডোনেশনসহ আরো অনেক ভালো কাজ।

আমরা সবাই একটা কথা জানি, সব কিছুরই ভালো ও খারাপ দিকই থাকে। এর মধ্যে ভালোটাকে গ্রহন ও খারাপটাকে বর্জন করতে হয়। কিন্তু যারা অনলাইনে প্রফেশনালি সময় কাটায় তারা ফেসবুককে সবচেয়ে বড় ব্যাবসায়ের মাধ্যম মনে করছে। কারন, ফেসবুকের মাধ্যমেই সবচে দ্রূত আপডেট নিউজগুলো পাওয়া যাচ্ছে। ফেসবুকের সময়টাজে আপনি কীভাবে কাজে লাগাবেন সেটি একেবারেই আপনার সিদ্ধান্ত।

আমরা সবাই ভাললভাবেই ফেসবুক ব্যবহার করতে জানি। এটা হয়তো জানিনা যে এখানে কিছু বিষয় জানলেই এখান থেকে ইনকাম করাও সম্ভব। যেমনঃ

১। ই-কমার্স: ফেসবুক ব্যবহার করতে জানলে এবং একটি পেজ খুললেই বাংলাদেশে ই-কমার্স ব্যবসা করা যায়। মহিলাদের শাড়ি, মেয়েদের ড্রেস, গিফট আইটেম ইত্যাদির মাধ্যমে ই-কমার্স করা যায়।

২। লোকাল ব্যবসা: আপমার স্থানীয় যে কোন ব্যবসায় বেশি লাভের জন্য সবাই ফেসবুক মার্কেটিংকে ব্যবহার করছে। রেস্টুরেন্ট, ফ্যাশন হাউসের মতো ব্যবসাও ফেসবুকের মাধ্যমে করা যাচ্ছে।

৩। সাইটে ট্রাফিক ও অ্যাডসেন্স: একটা সাইটে যত বেশি ট্রাফিক থাকে তত বেশি ইনকাম হয়। যেমনঃ ব্লগ সাইট।

৪। নিজের দক্ষতাকে ব্রান্ডিং: আপনি যদি যথোপযুক্ত মনে করেন কিন্তু চাকরি হচ্ছে না সেক্ষেত্রে আপনি আপনার দক্ষতাকে ফেসবুকের মাধ্যমে প্রমোশন চালাতে পারেন। চাকরিদাতারাই আপনাকে খুঁজে নেবে।

৫। মার্কেটপ্লেসে কাজ: ফেসবুক একটি বড় মার্কেটপ্লেস। এখানে খুজলেই প্রচুর কাজ পাওয়া যায়।
সবাই ভালো থাকবেন। সময়টাকে কাজে লাগাবেন। আল্লাহ হাফেজ….

Continue Reading